ই-কমার্স ওয়েবসাইট এই মুহুর্তে আসলেই কি প্রয়োজন?

ই-কমার্স বিজনেস করছেন কিন্তু ওয়েবসাইট নেই, এই মুহুর্তে ই-কমার্স ওয়েবসাইট কি আপনার সত্যিই প্রয়োজন? প্রয়োজন হলে আসলে কেমন বাজেটে ওয়েবসাইট গুলো বানাতে হয়, কখন করবেন ই-কমার্স ওয়েবসাইট ইত্যাদি বিস্তারিত খুটি-নাটি জানতে চাইলে পুরো আর্টিক্যেলটি আপনার জন্য।

প্রথমেই জানবো ই-কমার্স ওয়েবসাইট আসলে কি?

ধরুন আপনি ফেসবুকে বিভিন্ন প্রোডাক্ট বিক্রি করছেন। ফেসবুকে আপনি প্রোডাক্টের ছবি পোষ্ট করে বুস্ট করে সেল করছেন। ঠিক তেমনি ওয়েবসাইট এমন এক জায়গা যেখানে আপনার প্রোডাক্ট গুলো আপ্লোড করে দাম নির্ধারণ করে দিলে কাস্টোমার ওয়েবসাইট ভিজিট করে আপনার প্রোডাক্ট গুলো কেনার সুযোগ পাবে।

ই-কমার্স ওয়েবসাইট এই মুহুর্তে আসলেই কি প্রয়োজন?

ফেসবুকে দিব্যি ব্যবসা করে যাচ্ছেন, ভাবছেন সবাই বলে ই-কমার্স ওয়েবসাইট বানানোর কথা। কিন্তু আসলেই কি এটি প্রয়োজন? এক কথায় উত্তর হল, ব্যবসা যদি দীর্ঘ মেয়াদী করতে চান তাহলে অবশ্যই ওয়েবসাইট প্রয়োজন।

কখন বুঝবেন আপনার ই-কমার্স ওয়েবসাইট জরুরি কখন বুঝবেন প্রয়োজন নেই সেটি পয়েন্ট আকারে তুলে ধরার চেষ্টা করছিঃ

কখন আপনার ই-কমার্স ওয়েবসাইট জরুরি নাঃ

  • আপনি যদি বিজনেসে একেবারেই নতুন হোন, ফেসবুকে সবে মাত্র পেজ খুলে বিজনেস শুরু করেছেন তাহলে এই মুহুর্তে ওয়েবসাইট আপনার না করা শ্রেয়।
  • বিজনেস বড় করার প্ল্যান থাকলে দরকার নেই।
  • আপনার প্রোডাক্ট সংখ্যা নিত্যান্তই কম হলে দরকার নেই।

ই-কমার্স ওয়েবসাইট বিষয়ে আরো জানতে কল করুনঃ 01708-005464

কখন আপনার ই-কমার্স ওয়েবসাইট জরুরিঃ

  • অনেকদিন ধরে ফেসবুকে বিজনেস করছেন, বিজনেস বড় করতে চান তাহলে দ্রুত সিধান্ত নিতে হবে।
  • ফেসবুকে বিজনেস এই আছে এই নেই। মানে সেলের গ্যারেন্টি নেই। ওয়েবসাইট এক সময় আপনার স্বপ্নকে বাস্তবে রুপ দিতে পারে।
  • ওয়েবসাইটে আপনি ভাল মানের কাস্টোমার পাবেন যারা একসাথে অনেক অর্ডার করবেন।
  • ফুল পেমেন্ট আগেই পেয়ে যাবেন যদি আপনি চান।
  • একই সাথে ক্যাটাগরি ভিত্তিক অনেক প্রোডাক্ট দেখানো যায়।
  • কাস্টোমারের বিশ্বাস অর্জনে ওয়েবসাইটের ভুমিকা অনেক।
  • ব্র্যান্ড ভ্যালু ক্রিয়েট করতে চাইলে ওয়েবসাইটের বিকল্প নেই।

আপনি যদি পয়েন্ট গুলো বুঝে থাকেন তাহলে এখন নিজেই উত্তরটি পেয়ে যাবেন। সিধান্ত নিন, বিজনেস প্ল্যান করুন সেভাবে কাজে লেগে থাকুন, সফলতা আপনার কাছেই ধরা দিবে।

ই-কমার্স ওয়েবসাইট করতে চাচ্ছেন, ওয়েবসাইট বানাতে কি কি লাগবে জেনে নিন।

ই-কমার্স সহ যেকোন ওয়েবসাইট বানাতে হলে আপনার প্রথমেই যা প্রয়োজন তা হলো

১- ডোমেইন

২- হোস্টিং

ডোমেইন হল আপনার প্রতিষ্ঠানের নাম যেমন www.foresight-it.net । আর হোস্টিং হল মেমোরি। অর্থাৎ আপনার ওয়েবসাইটের যাবতীয় ইনফরমেশন (লেখা, ছবি, ভিডিও) যেখানে স্টোর করে রাখবেন সেই জায়গা।

ডোমেইন ও হোস্টিং কেনার পর আপনাকে ওয়েবসাইট ডিজাইন ও ডেভেলপমেন্ট করতে হবে। ওয়েবসাইট আপনি বিভিন্ন ক্যাটাগরির বা ল্যাঙ্গুয়েজে করতে পারেবন। এটার ওপর ওয়েবসাইটের দাম নির্ধারিত হয়। আপনি পিএইচপি/লারাভেল/জ্যাংগো/ওয়ার্ডপ্রেস/পাইথন/ ইত্যাদি দিতে বানাতে পারেন। ওয়েবসাইট যদি সিএমএস যেমন- ওয়ার্ডপ্রেস দিয়ে বানান তাহলে খরচ একটু কম হতে পারে তবে কাস্টোম করে পিএইচপি/লারাভেল দিয়ে করতে চাইলে খরচ একটু বেশি হবে।

বাজারে ৯৯৯ টাকায় ওয়েবসাইট সেল হয়, ওয়েবসাইট বানাতে বাজেট কত হওয়া উচিত?

আপনি যদি ই-কমার্স ওয়েবসাইট বানানোর চিন্তা করে থাকেন আর ৯৯৯, ২৯৯৯, ৪৯৯৯ টাকা সহ অল্প দামে সাথে ২০/৩০ জিবি হোস্টিং ফ্রি অফারে মুগ্ধ হয়ে যান তাহলে পচা শামুকে পা কাটলেন। আপনার একটি ডোমেইন কিনতে ৮০০-১৫০০ টাকা লাগতে পারে এটি নির্ভর করবে আপনি কি ডোমেইন কিনছেন। হোস্টিং প্রতি জিবি ভাল গুলো কিনতে ৮০০-১৬০০ টাকা লাগতে পারে। এবার আপনি যদি ওয়ার্ডপ্রেস দিয়ে ওয়েবসাইট বানান তাহলে প্রিমিয়াম থিম কিনে ভাল ভাবে কাস্টোমাইজড করতে ভাল প্রতিষ্ঠান ১০-১৫ হাজার টাকা চার্জ করবে। আর পিএইচপি/লারাভেল দিয়ে কাস্টম করে  বানাতে গেলে অবশ্যই ভাল পরিমাণ (২০-৫০ হাজার মিনিমাম) খরচ আপনাকে করতে হবে। তাই বুঝতেই পারছেন কম দামী ওয়েবসাইট কিনলে আপনার কপালটাই পুড়বে, ব্যবসা আর হবে না।  তবে রেডি করা ওয়েবসাইট যদি পান তাহলে কিছুটা কম খরচে পেতে পারেন তবে একেবারেই কমে নয়।

ই-কমার্স ওয়েবসাইট বানাতে চাচ্ছেন কিন্তু সঠিক পরামর্শ পাচ্ছেন না? তাহলে ফর্মটি ফিলাপ করুন, আমরাই আপনার সাথে যোগাযোগ করে ডিটেলস জানিয়ে দিব।

ওয়েবসাইট ডেভেলপমেন্ট সার্ভিস নিতে চাইলে যেসব বিষয় আপনার খুটিয়ে দেখতে হবেঃ

ওয়েবসাইট আপনি যেকোন কোম্পানীর থেকেই বানিয়ে নিতে পারেন, তবে যেসব বিষয়ে তীক্ষ্ণ নজর রাখবেন-

  • যাদের থেকে বানিয়ে নিবেন তাঁদের অফিস আছে কিনা যাচাই করুন
  • লং টার্ম সাপোর্ট পাবেন কিনা ভেবে দেখুন
  • তাদের সাথে বিস্তারিত কথা বলে ডিল করুন।
  • কোম্পানিটি ই-ক্যাব/ব্যাসিসের সদস্য হলে আরো ভাল।
  • প্রয়োজনে তাদের অফিস ভিজিট করুন।
  • ট্রেইনিং প্রদান করবে কিনা জেনে নিন।

ইত্যাদি বিষয় মাথায় রাখতে ইনশা-আল্লাহ ভাল সাপোর্ট পাবেন ।

বিশাল ডিস্কাউন্ট! লারাভেল ই-কমার্স ওয়েবসাইট মাত্র ৯৯৯৯ টাকায়! সীমিত সময়ের জন্য

-8Days -18Hours -8Minutes -43Seconds

ই-কমার্স ওয়েবসাইট বানাবেন কিসে ওয়ার্ডপ্রেস নাকি পিএইচপি/লারাভেলে?কোনটা ভাল?

আপনি যদি নতুন হয়ে থাকেন এন্ড বাজেট কম থাকে তাহলে আপনার জন্য ওয়ার্ডপ্রেস সাইট ভাল হবে। পরবর্তীতে বিজনেস বড় হলে ডিজাইন পরিবর্তন করতে পারবেন। আরযদি টাকা থাকে একবারে ইনভেস্ট করতে পারেন তাহলে লারাভেল অথাব পাইথন দিয়ে সাইট বানিয়ে নিতে পারেন বাজেট একটু বেশি লাগবে। তবে রেডি ওয়েবসাইট যদি কমে  পান তাহলে ওয়ার্ডপ্রেস ছাড়া লারাভেল দিয়েই বানিয়ে নিতে পারেন আপনার স্বপ্নের ই-কমার্স ওয়েবসাইট।

আশা করি আমাদের আয়োজন আপনি ভালভাবে বুঝতে পেরেছেন এবং কিছুটা হলেও আপনার উপকারে আসবে বলে আশা রাখি। এই পুরো বিষয় গুলো মাথায় রাখলে ওয়েবসাইট সার্ভিস আপনি ভাল পাবেন ইনশাআল্লাহ। ওয়েবসাইট বিষইয়ে আরো বেশি কিছু জানার থাকলে ফ্রি ফর্ম পূরণ করতে পারেন আমরাই আপনাকে কল করে আরো ডিটেলস বুঝিয়ে দিব। যেকোন ধরনের পরামর্শ গ্রহণের জন্য ফোরসাইট টিম আপনার জন্য প্রস্তুত থাকবে ইনশাআল্লাহ।

দীর্ঘ মেয়াদী সাপোর্ট সহ আপনার স্বপ্নের ওয়েবসাইটের ডেমো দেখতে

ক্লিক করুন